Homeসর্বশেষপ্রেমের টানে কিশোরগঞ্জে মালয়েশিয়ান তরুণী

প্রেমের টানে কিশোরগঞ্জে মালয়েশিয়ান তরুণী

প্রেমের টানে মালয়েশিয়া থেকে কিশোরগঞ্জে ছুটে এসেছেন লায়লা মিয়া আব্দুল্লাহ (২১) নামে এক তরুণী। জেলার নিকলি উপজেলার দামপাড়া গোয়াইহাটি গ্রামের মৃত শাহজাহান মিয়ার ছেলে আদনান রকি জোবানের (২৬) সঙ্গে সাত মাসের প্রেমের সম্পর্কের পর নিজ জন্মভূমি মালয়েশিয়া থেকে ছুটে আসেন লায়লা। ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে তাদের বিয়ে ও ঘুরে বেড়ানোর কিছু ছবি প্রকাশ পেয়েছে। যা এলাকায় তোলপাড় শুরু হয়েছে।

রোববার (৮ অক্টোবর) রাত সাড়ে বারোটায় জোবান কালবেলাকে জানান, পাঁচ বছর আগে কর্মসংস্থানের জন্য মালয়েশিয়া পাড়ি জমান তিনি। সেখানে ফেসবুকের মাধ্যমে লায়লার সঙ্গে প্রথমে পরিচয় হয়। পরে ধীরে ধীরে তাদের মধ্যে পরিচয় ও প্রেমের পরিণয় ঘটে।

জোবান বলেন, লায়লা স্টুডেন্ট এখনও লেখাপড়া করছে। আমাদের সাত মাসের সম্পর্ক। লায়লার ইচ্ছা ছিল বাংলাদেশে এসে ধুমধাম করে বিয়ে করবে আমাকে। তার ইচ্ছাতেই গত ২৭ সেপ্টেম্বর লায়লা ও তার বোনকে বাংলাদেশে নিয়ে আসি। শুক্রবার (৬ অক্টোবর) তার বোনের উপস্থিতিতে পারিবারিক ভাবে আমাদের বিয়ে হয়। ইতোমধ্যে লায়লার বোন মালয়েশিয়ায় চলে গিয়েছে। আগামী ২১ অক্টোবর আমরাও মালয়েশিয়া চলে যাব।

দামপাড়া গ্রামের নাঈম মিয়া বলেন, তাদের প্রেমের বিষয়টি অনেক আগেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে প্রকাশ পেয়েছে। দেশে ফিরে এসে হাওড়ে মোটরসাইকেল দিয়ে দুজনের ঘুরে বেড়ানোর ছবি ফেসবুকে প্রকাশ করেছে।

দামপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের ৬নং ওয়ার্ডের সদস্য আব্দুল হামিদ বলেন, জোবান মালয়েশিয়া চাকরি করতেন। চাকরির সুবাদে লায়লার সঙ্গে পরিচয় সূত্রে প্রেমে রূপ নেয়। লায়লা তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে আদনান রকির বাড়িতে আসেন। শুক্রবার (৬ অক্টোবর) তাদের পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়েছে।

দামপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন প্রেম ও বিয়ের বিষয়ে সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিয়ের পর থেকে এলাকাবাসী বউ দেখার জন্য আদনানের বাড়িতে দলবেঁধে আসছে।

সম্পর্কিত

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

আরও পড়ুন